, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪ , ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ


মোদির মন্ত্রিসভায় জায়গা পাননি কোনো মুসলিম!

  • আপলোড সময় : ১০-০৬-২০২৪ ০৪:১৩:২৩ অপরাহ্ন
  • আপডেট সময় : ১০-০৬-২০২৪ ০৪:১৩:২৩ অপরাহ্ন
মোদির মন্ত্রিসভায় জায়গা পাননি কোনো মুসলিম!
স্বাধীন ভারতে ‘এই প্রথম’ সাধারণ নির্বাচনের পর কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় কোনো মুসলিম জায়গা পাননি। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া। সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রী হিসেবে শপথ নেয়ার তিন বছর পর ২০২২ সালে বিজেপির মুখতার আব্বাস নাকভি রাজ্যসভায় পুনঃনির্বাচিত না হওয়ায়, এরপর থেকে নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন বিদায়ী মন্ত্রী পরিষদে আর কোনো মুসলিম মন্ত্রী ছিলেন না। 

এদিকে ৬৪ বছর বয়সী নাকভি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির হিন্দু জাতীয়তাবাদী ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) একমাত্র মুসলিম মন্ত্রী ছিলেন। ভারতীয় গণমাধ্যম বলছে, স্বাধীন ভারতে প্রতিটি সাধারণ নির্বাচনের পর পূর্ববর্তী মন্ত্রী পরিষদে শপথ নেয়া মন্ত্রীদের মধ্যে অন্তত একজন মুসলিম এমপি ছিলেন। 

গত ২০১৪ সালে যখন নরেন্দ্র মোদি প্রথমবারের মতো ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন, তখন নাজমা হেপতুল্লা শপথ নেন এবং সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রী হন। এরপর ২০১৯ সালে শপথ নেন নাকভি এবং তিনিও সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রী হন।
 
২০০৪ ও ২০০৯ সালে কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন ইউপিএ সরকারের সময় মুসলিম মন্ত্রীর সংখ্যা ছিল যথাক্রমে চার ও পাঁচজন। তার আগে ১৯৯৯ সালে অটল বিহারি বাজপেয়ীর মন্ত্রিসভার সদস্য ছিলেন বিজেপির শাহনাওয়াজ হুসেন ও ন্যাশনাল কনফারেন্সের ওমর আবদুল্লাহ। মোদির আমলে মন্ত্রিত্ব শেষ হয়ে যাওয়া বিজেপি নেতা মুখতার আব্বাস নাকভি ১৯৯৮ সালে বাজপেয়ী মন্ত্রিসভায়ও মন্ত্রী ছিলেন।
 
এদিকে টানা তৃতীয়বারের মতো ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু ও টাইমস অব ইন্ডিয়ার তথ্যমতে, রোববার (৯ জুন) সন্ধ্যায় নয়াদিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে মোদি ছাড়াও বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ সরকারের মন্ত্রিসভার ৭১ জন মন্ত্রী শপথ নিয়েছেন। 
প্রতিপক্ষ হিসেবে মুস্তাফিজের বোলিংয়ে দেখা একটু কঠিন ছিল: নেদারল্যান্ডসের কোচ

প্রতিপক্ষ হিসেবে মুস্তাফিজের বোলিংয়ে দেখা একটু কঠিন ছিল: নেদারল্যান্ডসের কোচ