, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ , ৩০ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ


সোনালী ব্যাংকের ২ কোটি টাকা লুট করলো কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট সদস্যরা

  • আপলোড সময় : ০৩-০৪-২০২৪ ১০:২২:২৫ পূর্বাহ্ন
  • আপডেট সময় : ০৩-০৪-২০২৪ ১০:২২:২৫ পূর্বাহ্ন
সোনালী ব্যাংকের ২ কোটি টাকা লুট করলো কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট সদস্যরা
এবার বান্দরবানের রুমা উপজেলায় অস্ত্রের মুখে সোনালী ব্যাংক ডাকাতি করে নগদ দু-কোটি টাকা ও নিরাপত্তারক্ষী পুলিশ ও আনসার সদস্যের ১০ টি অস্ত্র লুট করে নিয়ে গেছে বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট (কেএন এফ) এর সদস্যরা। গতকাল মঙ্গলবার রাত নয়টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে রুমা বাজারের প্রত্যক্ষদর্শী ব্যবসায়ীরা জানান, রুমা বাজার জামে মসজিদে তারাবি নামাজ চলাকালীন কেএনএফ-এর শতাধিক সশস্ত্র সদস্য মসজিদ এবং বাজার ঘেরাও করে। এ সময় কেএন এফ সদস্যরা নামাজ চলাকালীন মসজিদের ভিতর থেকে সোনালী ব্যাংকের ম্যানেজার নিজাম উদ্দিনকে ধরে ব্যাংকে নিয়ে যায়।

কেএনএফ সদস্যরা ব্যাংকের ভল্ট ভাংচুর চালিয়ে দুই কোটি টাকা, ম্যানেজার নিজাম উদ্দিন এবং ব্যাংকের নিরাপত্তা দায়িত্ব থাকা ৬ পুলিশ সদস্য ও ৪ আনসার সদস্যসহ ১০টি আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে যায়। এ ঘটনার সংবাদ পেয়ে সেনাবাহিনী ও পুলিশ ঘটনা স্থল পরিদর্শন করে।

বর্তমানে এ ঘটনায় রুমা উপজেলা সদরে থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। রুমা উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) দিদারুল আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছে।

এদিকে রুমা সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শৈবং মার্মা জানান, মঙ্গলবার দুপুরে বান্দরবান সোনালী ব্যাংক প্রধান কার্যালয় থেকে রুমা সোনালী ব্যাংকে বিপুল পরিমাণ টাকা পাঠানো হয়েছে। কেএনএফ সদস্যরা এ তথ্য পেয়ে ব্যাংক ডাকাতির ঘটনা ঘটিয়েছে।

এ ঘটনার সময় ব্যাংকের নিরাপত্তা দায়িত্বে নিয়োজিত ছিল ৬ পুলিশ ও ৪ আনসার সদস্যসহ ১০ জন। কেএনএফ সদস্যরা ব্যাংক ডাকাতি করতে গিয়ে পুলিশ ও আনসার সদস্যদের মাথায় ও বুকে অস্ত্র ঠেকিয়ে নিরস্ত্র করে।

এদিকে ব্যাংক ডাকাতি শেষে কেএনএফ সদস্যরা পুলিশ ও আনসারের ১০ টি অস্ত্র লুট করে নিয়ে যায়। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ব্যাংক ম্যানেজার নিজাম উদ্দিনের কোন খবর পাওয়া যায়নি।
অনেকে বলেন আমাকে নাকি ঠিক ‘মুসলমান’ মনে হয় না: মীর

অনেকে বলেন আমাকে নাকি ঠিক ‘মুসলমান’ মনে হয় না: মীর